Muktijudho


মুক্তিযুদ্ধঃ কাম্রুজ্জামানকে ফাঁসির নির্দেশ
ঢাকা, মে ১০: আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-২ জামাত-এ-ইসলামী নেতা মুহাম্মদ কাম্রুজ্জামাকে বৃহস্পতিবার ১৯৭১-এর মুক্তিযুদ্ধের সময়কালীন যুদ্ধাপরাধের জন্যে ফাঁসির সাজা শোনায়।

কাম্রুজ্জামান মুক্তিযুদ্ধের সময় ১২০জনকে হত্যা করেন ও গ্রামের মহিলাদের ধর্ষণ করেন। তিনি ১৯৭১-এ শেরপুরে এক পুরুষের খুন করেন একটি সেতুর কাছে।

 
তিন সদস্যের ট্রাইব্যুনালটি কাম্রুজ্জামানকে জুন ২৯, ১৯৭১এ বাদিউজ্জামান নামক শেরপুরের এক বাসিন্দাকে অপহরণ করে খুন করেন। তিনি ময়মনসিংহের দারা নামক এক ব্যাক্তি সহ ছয়জনকে রামাদানে হত্যা করেন।
 
গত বছর জুন ৪-এ ট্রাইব্যুনাল জামাতের সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল কাম্রুজ্জামানকে দোষী পায় মুক্তিযুদ্ধের সময় হত্যা, নিরস্ত্র নাগরিকদের নির্যাতন ও কুকর্মে সহযোগিতা সহ সাতটি মানবতার বিরুদ্ধে অপরাধের ক্ষেত্রে।
 
এক তদন্তকারী অধিকর্তা সহ ১৮জন সরকারি সাক্ষী এই মামলায় সাক্ষী দেয়।
 
পাঁচজন কাম্রুজ্জামানের পক্ষে সাক্ষী দেয়।


Picture of the day
লীগ নেতৃবৃন্দদের সাথে হাসিনা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মে ৩০, ২০১৩ গণভবনে মাদারীপুর জেলা আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দদের সাথে মতবিনময় করেন।

For more Muktijudho news