Bangladesh
কর্ণফুলীর তলদেশে এগিয়ে চলেছে বঙ্গবন্ধু টানেল

Bangladesh Live News | @banglalivenews | 24 Aug 2019

Bangabandhu tunnel construction moving forward
নিজস্ব প্রতিনিধি, ঢাকা, আগস্ট ২৪ : চলতি বছরের ২৪ ফেব্রুয়ারি খনন কাজ শুরুর পর গত ছয় মাসে বঙ্গবন্ধু টানেল (কর্ণফুলী টানেল) এগিয়েছে ৩৬০ মিটার। যা মূল টানেলের খনন কাজের ১৪ দশমিক ৬৯ শতাংশ। তবে প্রকল্প সংশ্লিষ্টদের দাবি, ভৌত অবকাঠামোসহ প্রকল্পের ৪৫ শতাংশ কাজ শেষ হয়েছে। টানেলের মোট দৈর্ঘ্য ৩ দশমিক ৪ কিলোমিটার বা ৩ হাজার ৪০০ মিটার। এর মধ্যে টিউবের দৈর্ঘ্য হবে ২ হাজার ৪৫০ মিটার।
কর্ণফুলী নদীর তলদেশে দক্ষিণ এশিয়ার সবচেয়ে বড় টানেল বোরিং মেশিন (টিবিএম) দিয়ে চলছে খননের মূল কাজ। প্রায় তিনুলা বাড়ির সমান উঁচু দৈত্যাকৃতির এ টিবিএম কর্ণফুলীর পতেঙ্গা পয়েন্ট থেকে মাটি কেটে কেটে এগিয়ে যাচ্ছে আনোয়ারা পয়েন্টের দিকে। টানেল বোরিং মেশিনটি কোনো কোনো পয়েন্টে নদীর তলদেশের মাটি থেকেও ১৪০ ফুট গভীর পর্যন্ত পাতালে ঢুকবে, যার মধ্য দিয়ে তৈরি হবে সুড়ঙ্গ পথ। মেশিনটি নদীর উত্তরপ্রান্ত থেকে পথ কাটা শুরু করেছে, বের হবে দক্ষিণপ্রান্ত দিয়ে।
 
প্রকল্প সংশ্লিষ্টদের কাছ থেকে পাওয়া তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, এখন পর্যন্ত ভৌত অবকাঠামো তৈরিসহ প্রকল্পের মোট ৪৫ শতাংশ কাজ শেষ হয়েছে।
গত ছয় মাসে মোট কাজ এগিয়েছে ১৪ শতাংশ। এর আগে সেতু বিভাগের সিনিয়র সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম জানিয়েছিলেন, ফেব্রুয়ারিতে টানেলের খনন কাজ শুরুর আগেই তারা প্রকল্পের প্রায় ৩২ শতাংশ কাজ শেষ করতে সক্ষম হয়েছিলেন। ২০২২ সালে শেষ হবে প্রকল্পের মেয়াদ।
 
তিনি আরও বলেন, ‘এখন টিবিএম মেশিনটি টিউব তৈরি করে পতেঙ্গা থেকে আনোয়ারা অংশের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে, যা দুই লেনের একটি টিউব সড়ক হবে। সেটি শেষ হলে টিবিএম আনোয়ারা প্রান্ত থেকে নদীর তলদেশে ঢুকে আরেকটি দুই লেনের সড়ক খোদাই করে পতেঙ্গা অংশে বের হবে। এভাবে দুটি টিউবে চার লেনের সড়ক পথ হবে কর্ণফুলী নদীর তলদেশে।’
 
প্রকল্প সূত্রে জানা যায়, এ প্রকল্পের অধীনে কর্ণফুলীর পশ্চিম ও পূর্ব প্রান্তে ৫ দশমিক ৩৫ কিলোমিটার অ্যাপ্রোচ সড়ক এবং ৭২৭ মিটার ওভারব্রিজও তৈরি করা হবে। ৩ দশমিক ৪ কিলোমিটার টানেল নির্মাণের পাশাপাশি টানেলের পূর্ব (আনোয়ারা) প্রান্তে ওপেন কাট ২০০ মিটার, কাট অ্যান্ড কভারের ১৯৫ মিটার, অ্যাপ্রোচ রোড ৫৫০ মিটার এবং ২৫ মিটার ওয়ার্কিং শ্যাফট নির্মাণ করা হবে।
 
২০২২ সাল নাগাদ টানেল নির্মাণ শেষে হলে কর্নফুলীর তলদেশ দিয়ে শুরু হবে গাড়ি চলাচল। বিশ্ব দেখবে সাংহাইয়ের আদলে ‘ওয়ান সিটি টু টাউন’ মডেলের বন্দরনগরী চট্টগ্রাম।



Video of the day
More Bangladesh News
Recent Photos and Videos

Web Statistics