Bangladesh

আইজিপির দায়িত্ব নিলেন চৌধুরী আবদুল্লাহ আল মামুন আইজিপি
ছবি: সংগৃহিত বাংলাদেশ পুলিশের নতুন আইজিপি চৌধুরী আব্দুল্লাহ আল মামুনের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করেন বিদায়ী আইজিপি ড. বেনজীর আহমেদ

আইজিপির দায়িত্ব নিলেন চৌধুরী আবদুল্লাহ আল মামুন

Bangladesh Live News | @banglalivenews | 01 Oct 2022, 12:11 pm

নিজস্ব প্রতিনিধি, ঢাকা, ১ অক্টোবর ২০২২ : বাংলাদেশ পুলিশের নতুন মহাপরিদর্শক (আইজিপি) হিসেবে দায়িত্ব নিয়েছেন চৌধুরী আব্দুল্লাহ আল মামুন। তিনি বিদায়ী আইজিপি ড. বেনজীর আহমেদের স্থলাভিষিক্ত হলেন।

শুক্রবার (৩০ সেপ্টেম্বর) বিকেলে পুলিশ হেডকোয়ার্টার্সে এই দায়িত্বভার গ্রহণ করেন তিনি।

চৌধুরী আবদুল্লাহ আল মামুন বিকেলে পুলিশ হেডকোয়ার্টার্সে এসে পৌঁছলে একটি সুসজ্জিত পুলিশ দল তাকে গার্ড অব অনার দেয়। এসময় নতুন আইজিপিকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানো হয়। পরে আইজিপির দপ্তরে গিয়ে নতুন আইজিপি হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করেন।

এদিকে বর্ণাঢ্য কর্মজীবন শেষে শুক্রবার (৩০ সেপ্টেম্বর) অবসরে গেলেন বাংলাদেশ পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) ড. বেনজীর আহমেদ। নতুন আইজিপি চৌধুরী আবদুল্লাহ আল মামুনের কাছে দায়িত্ব হস্তান্তরের পর বিকেলে পুলিশ হেডকোয়ার্টার্সে আনুষ্ঠানিকভাবে বেনজীর আহমেদকে বিদায়ী সংবর্ধনা জানানো হয়।

একটি সুসজ্জিত পুলিশ দল বিদায়ী আইজিপি ড. বেনজীর আহমেদকে আনুষ্ঠানিকভাবে গার্ড অব অনার প্রদান করে। এরপর তিনি তার দীর্ঘদিনের সহকর্মীদের কাছ থেকে বিদায় নেন। পরে তিনি সুসজ্জিত একটি গাড়িতে ওঠেন। এসময় পুলিশের ঐতিহ্য ও রীতি অনুযায়ী তাকে বিদায় জানানো হয়। পুলিশ হেডকোয়ার্টার্সের সবপর্যায়ের পুলিশ অফিসার ও সদস্য এবং সিভিল স্টাফরা দু’পাশে রশি টেনে গাড়িটি হেডকোয়ার্টার্সের আউট গেট পর্যন্ত নিয়ে যান। সেখান থেকে আইজিপির অশ্বারোহী সজ্জিত মোটর শোভাযাত্রাটি রাজধানীর মিন্টো রোডে অবস্থিত ডিএমপির পুলিশ ভবনে পৌঁছে দেওয়া হয়।

জানা যায়, নবনিযুক্ত চৌধুরী আবদুল্লাহ আল-মামুন ১৯৮৯ সালের ২০ ডিসেম্বর অষ্টম বিসিএস (পুলিশ) ব্যাচে সহকারী পুলিশ সুপার হিসেবে যোগদান করেন। বর্ণাঢ্য কর্মজীবনে তিনি অত্যন্ত সততা, দক্ষতা ও পেশাদারিত্বের সঙ্গে বাংলাদেশ পুলিশের বিভিন্ন ইউনিট বিশেষ করে পুলিশ হেডকোয়ার্টার্স, সিআইডি, ঢাকা ও ময়মনসিংহ রেঞ্জ ও সর্বশেষ র‌্যাবের মহাপরিচালকের দায়িত্ব পালন করেন।

র‌্যাব মহাপরিচালক হিসেবে সহিংস উগ্রবাদ ও জঙ্গিবাদ দমনে তিনি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন। জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে সামাজিক আন্দোলন গড়ে তুলতে তার উদ্যোগে অপারেশনাল কার্যক্রমের পাশাপাশি জনসচেতনতামূলক পোস্টার, ব্যানার ও ডিজিটাল বিলবোর্ডে জঙ্গিবাদবিরোধী প্রচারণা করা হয়।

১৯৬৪ সালের ১২ জানুয়ারি সুনামগঞ্জ জেলার শাল্লা থানার শ্রীহাইল গ্রামের এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন চৌধুরী আবদুল্লাহ আল-মামুন। তিনি চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সমাজ বিজ্ঞানে স্নাতক সম্মান ও স্নাতকোত্তর ডিগ্রি লাভ করেন। ব্যক্তি জীবনে তিনি বিবাহিত এবং তার চিকিৎসক স্ত্রী সহযোগী অধ্যাপক হিসেবে হলিফ্যামিলি রেড ক্রিসেন্ট মেডিকেল কলেজ, ঢাকায় কর্মরত রয়েছেন। তিনি দুই ছেলে ও এক মেয়র বাবা।