Bangladesh
ভোটের মাধ্যমে ‘পুনর্গঠন’ চায় তৃণমূল বিএনপি

Bangladesh Live News | @banglalivenews | 26 Apr 2019

BNP wants restructuring
নিজস্ব প্রতিনিধি ঢাকা, এপ্রিল ২৬ : গণতান্ত্রিক উপায়ে ভোটের মাধ্যমে দলের সর্বস্তরে পুনর্গঠন হবে- এমনটা প্রত্যাশা করছেন বিএনপির তৃণমূল নেতারা। তাদের দাবি, চাপিয়ে দেয়া পুনর্গঠন হলে তা দিয়ে কাঙ্ক্ষিত অর্জন সম্ভব হবে না।

তবে দায়িত্বশীল  নেতারা বলছেন, সবার মতামতের ভিত্তিতে দল পুনর্গঠনের সিদ্ধান্ত হচ্ছে।


একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে শোচনীয় পরাজয়ের পর বেশ কয়েকটি অনুষ্ঠানে বিএনপির সিনিয়র  নেতারা দল পুনর্গঠনের তাগিদ অনুভব করেন। সে লক্ষ্যে লন্ডনে থাকা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান দলটির বিভিন্ন পর্যায়ের  নেতাদের সঙ্গে স্কাইপের মাধ্যমে সংলাপ করছেন। ইতোমধ্যে বিএনপির কয়েকটি অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠন পুনর্গঠন হয়েছে। মূল দলের বেশ কয়েকটি ইউনিটও এ প্রক্রিয়ায় রয়েছে।


দলের এ পুনর্গঠন প্রক্রিয়া নিয়ে তৃণমূল  নেতাকর্মীদের মধ্যে শঙ্কা ও সম্ভাবনা- দুটোই লক্ষ্য করা যাচ্ছে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির এক  নেতা বলেন, পুনর্গঠন প্রক্রিয়া দলে শুরু হয়েছে, উদ্যোগটা ভালো। তবে, যে প্রক্রিয়ায় শুরু হয়েছে সেটা সন্তোষজনক নয়। এটা নিয়ে সবার মধ্যে শঙ্কা রয়েছে।


কারণ হিসেবে তিনি বলেন, কয়েকদিন আগে নয়াপল্টনে ঢাকা জেলা বিএনপির নতুন কমিটির পরিচিতি সভায় মারামারির ঘটনা ঘটে। ঢাকা জেলা বিএনপির কমিটি স্থানীয় নেতাকর্মীদের মতামতের ভিত্তিতে হয়নি বলে ওই পরিস্থিতি তৈরি হয়। মতামতের ভিত্তিতে হলে কমিটি অনেক শক্তিশালী হতো।


অভিযোগ উঠেছে, ঢাকা জেলা কমিটিতে দলের সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী ফোরামের এক  নেতা এবং উপদেষ্টা পরিষদের এক  নেতার ভাগাভাগির মাধ্যমে গঠিত হয়। ফলে কমিটি শক্তিশালী হয়নি। আবার পাবনা জেলা বিএনপির কমিটিও বিএনপির এক শীর্ষনেতার নামে ঠিকাদারি দেয়া হয়েছে। বঞ্চিতরাও তাদের অধিকার আদায়ে সচেষ্ট। ওই কমিটি নিয়েও সম্প্রতি নয়াপল্টনে অপ্রীতিকর পরিস্থিতি তৈরি হয়। স্থানীয়  নেতাকর্মীদের মতামতের ভিত্তিতে যদি কমিটি গঠন না হয় তাহলে সারাদেশেই ঢাকা ও পাবনা জেলা কমিটির মতো অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটবে- যোগ করেন তিনি।


ঢাকা মহানগর বিএনপির এক  নেতা বলেন, ওয়ান-ইলেভেনের পর থেকে বিএনপির বিভিন্ন পর্যায়ের কমিটির আকার অনেক বড় হয়েছে। কিন্তু রাস্তায় নামার জন্য  নেতা খুঁজে পাওয়া যায় না। ছাত্রদল, যুবদল, স্বেচ্ছাসেবক দল বা বিএনপি, যে সংগঠনের কথা বলা হোক না কেন আকার বেড়েছে সঠিক কিন্তু  নেতাদের মূল্যায়ন হয়নি। দলের গুরুত্বপূর্ণ এক  নেতার নেতৃত্বে একটা সিন্ডিকেট ‘ভাইয়া কমিটি’ প্রবর্তন হয়েছে। এখনও সেই পরিস্থিতি চলছে।




Video of the day
More Bangladesh News
Recent Photos and Videos

Web Statistics