Bangladesh
সৌদি আরবে নারী শ্রমিক না পাঠানোর দাবি : সংসদে তোপের মুখে মন্ত্রী

Bangladesh Live News | @banglalivenews | 13 Nov 2019

Conflict over sending bangladeshi women labourers to Saudi Arabia

Photo courtesy: Amirul Momenin

নিজস্ব প্রতিনিধি, ঢাকা, নভেম্বর ১৩ : বিদেশে বিশেষ করে সৌদি আরবে নারী শ্রমিক পাঠানো নিয়ে সংসদে তোপের মুখে পড়েছেন প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী মো. ইমরান আহমেদ।

 সংসদের প্রশ্নোত্তর পর্বে এ নিয়ে তাকে একের পর এক প্রশ্নের মুখোমুখি হতে হয়। এ সময় তাকে বিরোধী দলের একাধিক এমপি বিদেশে কর্মরত নারী শ্রমিকদের ওপরে যৌন নির্যাতনের বিষয়ে প্রশ্ন করেন। স্বাধীন দেশের মানসম্মান রক্ষায় সৌদি আরবে নারী শ্রমিক না পাঠানোর জন্য অনুরোধ করেন।মঙ্গলবার জাতীয় সংসদে প্রশ্নোত্তর পর্বে এ ঘটনা ঘটে।


এ সময় জাতীয় পার্টির মুজিবুল হক চুন্নু ও কাজী ফিরোজ রশীদ আক্রমণাত্মক প্রশ্ন করেন। এছাড়াও জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট থেকে বহিষ্কৃত এমপি সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমদ সৌদিতে নারী শ্রমিক পাঠানোর বিরোধিতা করে বক্তব্য রাখেন। সম্পৃরক প্রশ্ন করতে গিয়ে তারা এ বিরোধিতা করেন।


এমপিরা দাবি করেন, বাংলাদেশ এখন আর তলাবিহীন ঝুঁড়ি নয় যে, নারীদের সম্ভ্রমহানির আশংকা থাকলেও বিদেশে পাঠাতে হবে। এর পরিবর্তে বেশি করে পুরুষ শ্রমিক পাঠানোর এবং নারী কর্মীদের বিদেশে পাঠানো বন্ধের দাবি জানান তারা।


এ বিষয়ে প্রথমেই প্রশ্ন করতে গিয়ে জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্য মুজিবুল হক চুন্নু বলেন, সৌদি আরবে বিশেষ করে নারী গৃহকর্মীদের ‘যৌন হয়ারানি’সহ নানা ধরনের নির্যাতন করা হয়। এটা স্বীকৃত। এই অত্যাচারের কারণে অনেক নারীকর্মী সুযোগ পেলেই পালিয়ে যাচ্ছে। বাইরে গেলেও তাদের মুক্তি নেই, তাদেরকে ধরে নিয়ে জেলখানায় ঢুকানো হচ্ছে।
জবাবে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমেদ বলেন, বিদেশে নারীকর্মী পাঠানো রিক্রুট এজেন্সিদের মধ্যে অনিয়মের কারণে ১৬০টির কার্যক্রম স্থগিত করা হয়েছে। তিনটি এজেন্সির লাইসেন্স বাতিল করা হয়েছে। জরিমানা করা হয়েছে কোটি টাকার বেশি। এক্ষেত্রে সরকারের অবস্থান জিরো টলারেন্স।


এদিকে সৌদি আরবে কাজ করতে গিয়ে নির্যাতনের বাংলাদেশি নারীদের মৃত্যুর ঘটনায় প্রতিবাদ জানিয়েছে বেশ কয়েকটি নারী সংগঠনের কর্মীরা। তারা দাবি জানিয়েছেন, আর কোনও নারী যেন নির্যাতনের শিকার না হন। পাশাপাশি সৌদি আরবে থাকা নারীদের নিরাপত্তা নিশ্চিতের দাবিতে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেছেন তারা। মঙ্গবলবার (১২ নভেম্বর) সকালে রাজধানীর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে ‘প্রবাসী নারী শ্রমিকদের পাশে বাংলাদেশ’ ব্যানারে এ বিক্ষোভ কমসূূচি পালন করা হয়।


বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তারা বলেন, সম্প্রতি সৌদি আরবে মারা যাওয়া নাজমার মতো আর কোনও নারীকে যেন মরতে না হয়।




Video of the day
More Bangladesh News
Recent Photos and Videos

Web Statistics